Friday , November 16 2018
Breaking News

বাংলাদেশের জয়ের দিনে আলোচিত ৬ ঘটনা

ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচে স্বাগতিক জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ৮ উইকেটে জয় লাভ করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। সোমবার (১৫ জানুয়ারি) হোম অব ক্রিকেট মিরপুরে বেলা ১২ টায় শুরু হওয়া ম্যাচটিতে টস হেরে প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমে ১৭০ রান সংগ্রহ করে জিম্বাবুয়ে। জবাবে খেলতে নেমে তামিম-সাকিবের ব্যাটে ভর করে বড় জয় পায় বাংলাদেশ।

ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচে ছোট-খাটো অনেক ঘটনায় ঘটেছে। তার মধ্যে আলোচিত ছয়টি ঘটনা থাকছে গোনিউজের পাঠকদের জন্য।

মাশরাফীর টোটকা:
সোমবারের ম্যাচটিতে শুরুতেই জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে কৌশল খাটান টাইগার কাপ্তান মাশরাফী বিন মোর্তুজা। তা হল, আজকের কন্ডিশনে তথা সিমিং উইকেটের কথা মাথায় রেখে যেখানে সবাই পেসারদের নিয়ে ভাবছিলেন সেখানে তার উল্টোটাই করলেন ম্যাশ। কারণ হিসেবে বলা যায়, জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট দল তুলনামূলকভাবে স্পিনে দূর্বল। আর এই সুযোগটি ভালোভাবে কাজে লাগালেন তিনি।

মূলত, গতানুগতিক ধারার বাইরে এসে স্পিনার সাকিবকে দিয়ে প্রথমে বল করান এবং সাফল্যও পান। ফলে জিম্বাবুয়ে টিম ৩০ রানের ঘরে তিন উইকেট হারায়। আর ১৭০ রানে থেমে যায় তাদের ইনিংস।

রুবেলের সেঞ্চুরি:

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ত্রিদেশীয় টুর্নামেন্টের প্রথম ম্যাচে নতুন এক মাইলফলক স্পর্শ করেন রুবেল হোসেন।পঞ্চম বাংলাদেশি ক্রিকেটার হিসেবে একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচে ১০০ উইকেটে শিকারের রেকর্ড গড়েন দেশের এই স্পিড মাস্টার।

ওয়ানডেতে এখন পর্যন্ত মোট ৮১ ম্যাচে ১০০ উইকেট লাভ করেন রুবেল। ক্যারিয়ারে ছয়বার চার উইকেট নেয়ার পাশাপাশি একবার পাঁচ উইকেট নেয়ারও কৃতিত্ব দেখিয়েছেন এই তারকা।

একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে রুবেল হোসেনের আগে ১০০ উইকেট নেয়ার স্বাদ পেয়েছেন মোহাম্মদ রফিক, আব্দুর রাজ্জাক, মাশরাফী মোর্তজা ও সাকিব আল হাসান।

ছন্দময় মোস্তাফিজের বোলিং ঝাঁজ:
সদ্য শেষ হওয়া বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) পঞ্চম আসরে বল হাতে অনুজ্জ্বল ছিলেন মোস্তাফিজুর রহমান। পাঁচ ম্যাচে হাত ঘুরিয়ে চার উইকেট তুলেছিলেন তিনি। তবে নতুন বছরের শুরুতেই ত্রিদেশীয় টুর্নামেন্টে নিজেদের প্রথম ম্যাচ দিয়ে ছন্দে ফিরেছেন কাটার মাস্টার।

সোমবার (১৫ জানুয়ারি) জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ম্যাচটিতে ২৯ রান খরচ করেন ১০ ওভারে। এছাড়া একটি মেডেনেরও দেখা পান তিনি। মূলত সাকিবের টপাটপ উইকেট ও মাশরাফী-মোস্তাফিজের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে ১৭০ রানে গুটিয়ে যায় সফরকারী জিম্বাবুয়ে।

চেনা ছন্দে সাকিব:
হাত ঘুরিয়ে ৩ উইকেট, ব্যাট হাতে ৩৭। আর কি চাই সাকিবের। মিরপুরে সফরকারী জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে চেনা ছন্দে দেখা গেল সাকিব আল হাসানকে। ম্যাচটিতে শুরুতেই টাইগারদের হয়ে ব্রেক থ্রো এনে দেন সাকিব। শুরুর ওভারে উইকেট তুলে বিপদে ফেলে দেন জিম্বাবুয়েকে। ওয়ানডেতে সাকিবের এখন উইকেট সংখ্যা ২২৯টি। অন্যদিকে মিররপুরে স্টেডিয়ামে সবচেয়ে জয়সুরিয়ার বেশি রানের রেকর্ডের কিছুটা কাছে পৌঁছেছেন বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার।

জিম্বাবুয়ে অলরাউন্ডার সিকান্দার রাজার এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে পড়ে মাঠ ছাড়ার আগমুর্হুত পর্যন্ত সাকিবের ব্যাট জানান দিয়েছিল বড় ইনিংসের। তবে শেষ পর্যন্ত বন্ধু তামিমকে রেখে প্যাভিলিয়নের দিকে হাটা শুরু করেন তিনি।

বিজয়ের পুরনো অভ্যাস:
নতুন বছরে তামিমের সঙ্গে ওপেনিংয়ে নেমে তিন বছরের আক্ষেপ ফুরায় এনামুল হক বিজয়ের। দীর্ঘ দিন পর জাতীয় দলে ফিরেই হাত খুলে খেলতে থাকেন বিজয়। প্রথম বলেই চার হাঁকিয়ে খুলেন রানের খাতা। এরপর আরো তিনটি দারুণ চার মারেন। কিন্তু ইনিংসটাক আর বড় করতে পারেননি।

সেই আগের মত হিট করতে গিয়ে ডিপ স্কয়ার লেগে ক্রেইগ আরভিনকে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন তিনি।

দর্শকদের হালচাল:

বছরের প্রথম ম্যাচ। তাও হোম অব ক্রিকেট মিরপুর শেরে-ই বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে এতসবের মাঝেও বাংলাদেশ-জিম্বাবুয়ের ম্যাচে দর্শকের আনাগোনা লক্ষ্য করা যায়নি। তবে বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে দর্শক ঢুকতে দেখা যায় গ্যালারিতে।